মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪ , ১২ আষাঢ় ১৪৩১

modhura
Aporup Bangla

নেক্সজি সিরিজের ৫০ মেগাপিক্সেল ক্যামেরার ৮জিবি র‌্যামের ফোন আনলো ওয়ালটন

প্রেসবক্স

প্রকাশিত: ১৬:৫০, ৩ এপ্রিল ২০২৩

আপডেট: ১৬:৫০, ৩ এপ্রিল ২০২৩

সর্বশেষ

নেক্সজি সিরিজের ৫০ মেগাপিক্সেল ক্যামেরার ৮জিবি র‌্যামের ফোন আনলো ওয়ালটন

ছবি সংগ্রহ

দেশের স্মার্টফোন বাজারে নতুন আরেকটি চমক নিয়ে এলো ওয়ালটন। আগামি প্রজন্মের জন্য ‘নেক্সজি’ সিরিজের নতুন স্মার্টফোন বাজারে ছাড়লো ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের মোবাইল বিভাগ। সাশ্রয়ী মূল্যের ফোনটির মডেল ‘নেক্সজি এনসিক্স’। দৃষ্টিনন্দন ডিজাইনের ৫০ মেগাপিক্সেলের ডুয়াল এআই রিয়ার ক্যামেরার ফোনটিতে রয়েছে ৮ জিবি র‌্যাপিড মেমোরি র‌্যাম, এইচডি প্লাস রেজুলেশনের বিশাল ডিসপ্লে, পর্যাপ্ত স্টোরেজ ও শক্তিশালী ব্যাটারি ইত্যাদি অসংখ্য অত্যাধুনিক ফিচার। 
ওয়ালটন মোবাইলের হেড অব বিজনেস ইন্টেলিজেন্ট রেজাউল হাসান জানান, ব্লারিশ গ্রিন ও স্কাই গ্রে এই দুটি আকর্ষণীয় রঙে ফোনটি বাজারে এসেছে। ভ্যাট ছাড়া ‘নেক্সজি এনসিক্স’ মডেলের ফোনটির মূল্য ১৪,৯৯৯ টাকা। দেশের সব ওয়ালটন প্লাজা, মোবাইলের ব্র্যান্ড ও রিটেইল আউটলেটের পাশাপাশি ঘরে বসেই ই-কমার্স ওয়েবসাইট ওয়ালটন ই-প্লাজা (যঃঃঢ়ং://বঢ়ষধুধ.ধিষঃড়হনফ.পড়স) এবং ওয়ালটন ডিজি-টেক (যঃঃঢ়ং://ধিষঃড়হফরমরঃবপয.পড়স) থেকে ফোনটি কেনা যাচ্ছে। 
ওয়ালটন মোবাইলের মার্কেটিং ইনচার্জ হাবিবুর রহমান তুহিন জানান, অ্যান্ড্রয়েড ১২ অপারেটিং সিস্টেমে পরিচালিত এই ফোনে র‌্যাপিড মেমোরি টেকনোলজি ব্যবহৃত হয়েছে। ফলে ব্যবহারকারী এতে ৮ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম পাবেন। গ্রাফিক্স হিসেবে আছে মালি-জি৫৭ এমপি১। যার ফলে এই ফোনের কার্যক্ষমতা ও গতি হবে অনেক বেশি। বিভিন্ন অ্যাপস ব্যবহার, ইন্টারনেট ব্রাউজিং, থ্রিডি গেমিং এবং দ্রুত ভিডিও লোড ও ল্যাগ-ফ্রি ভিডিও স্ট্রিমিং সুবিধা মিলবে।
ফোনটিতে ১.৬ গিগাহার্টস গতির এআরএম কর্টেক্স-এ৭৫ অক্টাকোর প্রসেসর ব্যবহৃত হয়েছে। এর অভ্যন্তরীণ মেমোরি ১২৮ গিগাবাইটের। যা মাইক্রো এসডি কার্ডের মাধ্যমে ১২৮ গিগাবাইট পর্যন্ত বাড়ানো যাবে। 
নতুন এই স্মার্টফোনে দেয়া হয়েছে ৬.৬ ইঞ্চির এইচডি প্লাস ভি-নচ ডিসপ্লে। যার টাচ স্যাম্পলিং রেট ১৮০ হার্জ এবং রিফ্রেশ রেট ৯০ হার্জ। ফলে বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার এবং ভিডিও দেখা, গেম খেলা, বই পড়া বা ইন্টারনেট ব্রাউজিংয়ে মোবাইল স্পর্শের অনন্য অভিজ্ঞতা পাবেন গ্রাহক।
ফোনটির পেছনে রয়েছে এলইডি ফ্ল্যাশ, অটোফোকাস এবং পিডিএএফসহ এআই ডুয়াল ক্যামেরা। যার প্রধান সেন্সরটি ৫০ মেগাপিক্সেলের। এর পাশাপাশি রয়েছে ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো সেন্সর। আকর্ষণীয় সেলফির জন্য সামনে রয়েছে ৮ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। এতে ডুয়াল ভিউ ভিডিও রেকর্ডিং মোড অপশন রয়েছে। এরফলে রিয়ার ও ফ্রন্ট উভয় ক্যামেরা ব্যবহার করে একসঙ্গে ভিডিও ধারণ করা যাবে।
দুর্দান্ত পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ডিভাইসটিতে রয়েছে ৫০০০ এমএএইচ হাই-ক্যাপাসিটি লি-পলিমার ব্যাটারি। ১৮ ওয়াট টাইপ-সি পিডি৩.০ ফাস্ট চার্জিং থাকায় দ্রুততম সময়ে চার্জ হবে। ফোনটির অন্যান্য ফিচারের মধ্যে রয়েছে ফেস আনলক, মাল্টি-ফাংশনাল সাইড মাউন্টেড ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর, আরজিবি নোটিফিকেশন লাইট সেন্সর, স্মার্ট কন্ট্রোল, স্ক্রিন রেকর্ড, লং স্ক্রিনশট, ডার্ক মোড, আই কমফোর্ট, জেসচার নেভিগেশন, অ্যাসেন্ট কালার চেঞ্জ, গুগুল অ্যাসিস্টান্ট, ভিওএলটিই বা ভোল্টি সাপোর্টসহ ডুয়াল ফোরজি সিম ইত্যাদি।
ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের নিজস্ব কারখানায় তৈরি এই স্মার্টফোনে ৩০ দিনের বিশেষ রিপ্লেসমেন্ট সুবিধাসহ এক বছরের বিক্রয়োত্তর সেবা পাচ্ছেন গ্রাহক।
 

সর্বশেষ